জন্ম নিবন্ধন অনলাইনে না থাকলে কি করতে হবে

আপনার হাতে লেখা বা প্রিন্ট করা জন্ম নিবন্ধনটি অনলাইনে নেই? জন্ম নিবন্ধন অনলাইনে না থাকলে কি করবেন, কিভাবে হাতে লেখা জন্ম নিবন্ধন অনলাইন করার নিয়ম নিয়ে বিস্তারিত জানতে সম্পূর্ণ ব্লগটি মনযোগ দিয়ে পড়ুন।

জন্ম নিবন্ধন অনলাইনে না থাকলে কি করতে হবে

বর্তমানে পুরাতন বা হাতে লেখা নিবন্ধন সনদ আর কোন কাজে ব্যবহার হচ্ছেনা। তাই আপনার জন্ম নিবন্ধন তথ্য অবশ্যই অনলাইনে থাকতে হবে। অর্থাৎ জন্ম নিবন্ধন ডিজিটাল বা অনলাইন হতে হবে।

আপনার জন্ম নিবন্ধন অনলাইনে আছে কিনা কিভাবে জানবেন- জন্ম নিবন্ধন যাচাই

জন্ম নিবন্ধন অনলাইনে না থাকলে কি করতে হবে

যদি অনলাইনে আপনার জন্ম নিবন্ধন তথ্য খুঁজে পাওয়া না যায়, প্রথমে আপনাকে এর কারণ বের করতে হবে। যদি আপনি নিশ্চিত হন যে আপনার নিবন্ধন তথ্য অনলাইন ডাটাবেইজে নেই তখন আপনাকে অবশ্যই নতুনভাবে জন্ম নিবন্ধনের জন্য অনলাইনে আবেদন করতে হবে। এছাড়া অন্য কোন উপায় নেই।

কেন আপনার জন্ম নিবন্ধন তথ্য অনলাইনে পাওয়া যায়নি

পূর্বে ইউনিয়ন পরিষদ এবং পৌরসভায় রেজিস্টার বইতে আমাদের তথ্যসমূহ হাতে লিখে সংরক্ষণ করা হত। এর পর বাংলাদেশ সরকার এই রেজিস্টার অনলাইন করার জন্য সিদ্ধান্ত নেয়।

অনলাইনে জন্ম নিবন্ধন তথ্য আপলোড করার জন্য, হাতে লেখা এসব তথ্যগুলোকে ম্যানুয়েলি অনলাইনে নেয়া হয়। তখন, ভুলবশত কারো তথ্য বাদ পড়ে যেতে পারে।

এমনভাবে হয়তো আপনার তথ্যটি বাদ পড়েছে। তাই আপনার জন্ম নিবন্ধন তথ্য থাকা সত্ত্বেও অনলাইনে আপনার তথ্য পাওয়া যাচ্ছেনা।

আরো একটি কারণ হতে পারে আপনার কাছে যে জন্ম নিবন্ধন নম্বরটি আছে তা হয়তো ভুল। আপনি আপনার ইউনিয়ন পরিষদ/ পৌরসভা বা সিটি কর্পোরেশন অফিসে আপনার সমস্যাটি জানান।

হাতে লেখা পুরাতন জন্ম নিবন্ধন অনলাইন করার নিয়ম

হাতে লেখা জন্ম নিবন্ধনের তথ্য যদি অনলাইন ডাটাবেইজে পাওয়া না যায়, আপনাকে প্রথমেই নিশ্চিত হতে হবে যে, আপনার জন্ম নিবন্ধন নম্বরটি ১৭ ডিজিট এবং প্রথম ৪ ডিজিট আপনার জন্ম সাল। নিবন্ধন নম্বরটি সঠিক হওয়া স্বত্ত্বেও নিবন্ধন তথ্য অনলাইনে পাওয়া না গেলে, নতুনভাবে জন্ম নিবন্ধনের আবেদন করতে হবে।

পুরাতন ও হাতে লেখা জন্ম নিবন্ধন নম্বর ১৬ ডিজিটের হয়ে থাকে। এক্ষেত্রে ১৬ ডিজিটের নম্বরটি ১৭ ডিজিট করুন

যদি আপনার জন্ম ২০০১ সাল বা তার পর হয়, আপনার জন্ম নিবন্ধন আবেদনের জন্য আপনার পিতা ও মাতার জন্ম নিবন্ধন অবশ্যই অনলাইনে থাকতে হবে।

কারণ এক্ষেত্রে তাঁদের নিবন্ধন নম্বর আবেদন দিতে হবে এবং তাঁদের নিবন্ধন অনুসারেই তাঁদের নাম আপনার আবেদনে স্বয়ংক্রীয়ভাবে যুক্ত হবে।

তাই আপনার আবেদনের পূর্বে যাচাই করে নিন আপনার বাবা মায়ের নিবন্ধন অনলাইন করা আছে কিনা। জন্ম নিবন্ধন অনলাইনে আছে কিনা যাচাই করুন- জন্ম নিবন্ধন যাচাই

আপনার জন্ম ২০০০ সন বা তার পূর্বে হয়ে থাকে, আপনার বাবা মায়ের জন্ম নিবন্ধন থাকা বাধ্যতামূলক নয়। এক্ষেত্রে আবেদনের সময় পিতা-মাতার নাম লিখে দিতে পারবেন।

অনলাইনে নতুন জন্ম নিবন্ধনের আবেদন কিভাবে করবেন তার পুরো টিউটোরিয়াল নিচের লিংকে

অনলাইনে জন্ম নিবন্ধন ফরম পূরণ করার নিয়ম

আশা করি লেখাটি আপনার উপকারে লাগবে। যদি উপকারে লাগে, দয়া করে এটি শেয়ার করে অন্যকে জানিয়ে দিন। জন্ম নিবন্ধন সংক্রান্ত আরও প্রয়োজনীয় তথ্য জানতে দেখুন – জন্ম নিবন্ধন

Similar Posts