অনলাইনে সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন ফরম পূরণ করার নিয়ম

আপনি নিজেই সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন ফরম পূরণ করতে পারবেন। প্রয়োজন হবে না কোন ইনকাম ট্যাক্স প্রফেশনাল।

সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন ফরম পূরণ

যাদের সঞ্চয়পত্রের আয় আছে তারা এবছর অনলাইনে আয়কর রিটার্ন দাখিল করতে পারছেন না। তবে অনলাইনে আয়কর রিটার্ন ফরম পূরণ করে প্রিন্ট করে আয়কর অফিসে জমা দিতে পারবেন। যেটি সবার জন্য খুবই উপকারী হবে।

আমি দেখাব কিভাবে আপনি অনলাইনে সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন ফরম পূরণ করবেন এবং প্রিন্ট কপি নিয়ে আয়কর অফিসে রিটার্ন দাখিল করবেন

যাদের ৫ লক্ষ টাকার বেশি অংকের সঞ্চয়পত্র আছে তাদের ক্ষেত্রে রিটার্ন দাখিল বাধ্যতামূলক। তাই অনেকের ক্ষেত্রেই আয়কর রিটার্ন দাখিল বাধ্যতামূলক

৩০ নভেম্বর ২০২২ এর মধ্যে আপনার আয়কর রিটার্ন দাখিল করতে হবে। তা নাহলে জরিমানা দিয়ে আগামী ৩০ জুন ২০২৩ এর আগ পর্যন্ত রিটার্ন দাখিল করা যাবে। তবে নতুন যারা রিটার্ন দাখিল করবেন তারা ৩০ জুন ২০২৩ এর আগ পর্যন্ত জরিমানা ছাড়া রিটার্ন জমা দিতে পারবেন।

অনেকের বিভিন্ন উৎস থেকে আয় থাকতে পারে। আয়কর অধ্যাদেশ (Income Tax Ordinance 1984) অনুযায়ী আয়ের উৎসসমূহকে (Heads of Income) ৭টি ভাগে ভাগ করা হয়েছে। কারো যদি একাধিক উৎস থেকে আয় থাকে সকল আয়সমূহ অবশ্যই আয়কর রিটার্নে দেখাতে হবে।

এখানে আমি ধরে নিলাম আপনার সঞ্চয়পত্রের আয় ছাড়া আর কোন আয় নেই। এখানে দেখাবো, শুধুমাত্র সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন ফরম কিভাবে পূরণ করবেন।

সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্নের জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র

  • সঞ্চয়পত্রের মুনাফা ও উৎসে আয়কর কর্তনের প্রত্যায়পত্র
  • সংশ্লিষ্ট আয়বর্ষের Bank Statement
  • সঞ্চয়পত্র ক্রয়ের অর্থের উৎসের প্রমাণ (প্রযোজ্য হলে)

সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন ফরম পূরণ

সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন ফরম পূরণ করার জন্য e Return website এ লগইন করে Return Submission অপশনে যান। Heads of Income থেকে Interest on Securities টিক করুন এবং অন্য কোন খাতে আয় থাকলে তাও টিক করুন। তারপর Income Details থেকে সঞ্চয়পত্রের ধরণ সিলেক্ট করে রেজিস্ট্রেশন নম্বর, ইস্যু তারখ, মূল্য, মোট সুদ ও উৎসে কর কর্তনের পরিমাণ লিখে রিটার্ন ফরম পূরণ করুন।

রিটার্ন ফরম পূরণের বিস্তারিত প্রক্রিয়া নিচে ছবিসহ ধাপে ধাপে দেখানো হলো।

ধাপ ১: ই রিটার্ন সিস্টেমে রেজিস্ট্রেশন করুন

অনলাইনে রিটার্ন দাখিলের জন্য ই রিটার্ন সিস্টেমে আপনারকে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। পরবর্তীতে প্রতিবছর সিস্টেমে লগইন করে রিটার্ন সাবমিট করা যাবে।

ই রিটার্ন সিস্টেমে রেজিস্ট্রেশনের জন্য প্রথমে এই লিংকে ভিজিট করুন- E-Return Registration

ই রিটার্ন রেজিস্ট্রেশন

প্রথম বক্সে আপনার টিআইএন (TIN) নম্বরটি লিখুন। তারপর আপনার নিজের জাতীয় পরিচয়পত্র দ্বারা বায়োমেট্রিক রেজিস্ট্রেশন করা আছে এমন Mobile Number লিখুন (প্রথম শুন্য বাদে)। এরপর ক্যাপচা কোডটি সঠিকভাবে লিখুন এবং সবশেষে Verify বাটনে ক্লিক করুন।

এই ধাপে Mobile Verification করতে হবে। Verify বাটনে ক্লিক করার পর আপনার মোবাইলে একটি ৬ সংখ্যার OTP Code পাঠানো হবে।

ই রিটার্ন রেজিস্ট্রেশন

এখানে ৬ ডিজিটের ওটিপি কোডটি লিখুন এবং আপনি ভবিষ্যতে ই রিটার্ন সিস্টেমে Log In করার জন্য একটি Password সেট করুন।

Password অবশ্যই ইংরেজিতে Capital Letter + Small Letter + Number + Mark ব্যবহার করে সেট করবেন। যেমন হতে পারে- Dhaka123#

ধাপ ২: Assessment ও Income সম্পর্কিত তথ্য দিন

যে অর্থবছরে আপনি রিটার্ন Sumbit করছেন তা হচ্ছে Assessment Year, তাই এটি হবে ২০২২-২০২৩। আয়বর্ষ বা Income Year হবে গত অর্থবছর ১ জুলাই ২০২১ থেকে ৩০ জুন ২০২২ পর্যন্ত।

Assessment Information

  • Any taxable income in the above-mentioned income year? এখানে আয় বছরে আপনার করযোগ্য কোন আয় আছে কিনা তা জানতে চাওয়া হয়েছে। যেহেতু আপনার সঞ্চয়পত্রের সুদ আয় আছে যেটি একটি করযোগ্য আয়। তাই Yes দিবেন।
  • Any income which is fully exempted from tax? যেসমস্ত আয়ের উপর সরকার কর অব্যাহতি দিয়েছে অর্থাৎ যেসব আয়ের উপর কোন কর দিতে হয় না, এমন কোন আয় আছে কিনা তা জানতে চাওয়া হয়েছে। যেমন, রেমিটেন্স, আইটি খাতের রপ্তানি, সরকারি ভাতা ও পুরস্কার। এমন কোন আয় থাকলে Yes দিন।
  • Resident Status– রেসিডেন্ট স্ট্যাটাস অবশ্যই Resident সিলেক্ট করুন।

Heads of Income

এখানে ৭ টি আয়ের উৎস দেয়া আছে। সঞ্চয়পত্র ও বন্ডের জন্য আমরা Interest on Securities সিলেক্ট করব।

এছাড়া, বেতন থাকলে Salaries, ব্যবসা বা পেশা থেকে আয় হলে Income from Business or Profession, কৃষি আয় থাকলে, বাড়ি ভাড়া ও গৃহ সম্পত্তি থেকে আয় হলে Income from house property তে টিক দিন।

এগুলো ছাড়া অন্য কোন ‍উৎস থেকে আয় থাকলে, Income from other sources টিক দিন।

Any income from the following sources? এখানে কোন ফার্মের অংশীদার, এসোসিয়েশনের সদস্য, বিদেশ থেকে আয়, নির্ভরশীল স্ত্রী ও সন্তানের আয় আছে কিনা তা জানতে চাওয়া হয়েছে। থাকলে টিক দিবেন না থাকলে টিক দিবেন না।

সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন

Save & continue বাটনে ক্লিক করে পরের ধাপে যান।

ধাপ ৩: অন্যান্য তথ্য দিন

এখানে মূলত আপনার আয়ের লোকেশন, কর ছাড় (Tax Rebate) আছে কিনা, কোন কোম্পনীর শেয়ার আছে কিনা, মোট সম্পদের পরিমাণ ৪০ লক্ষ টাকার বেশি কিনা, মোটর কার আছে কিনা, ইত্যাদি জানতে চাওয়া হয়।

IT10B ফরম– যাদের মোট সম্পদ ৪০ লক্ষ টাকার বেশি তাদের ব্যয় বিবরনী দেখাতে হয়। তাই যদি আপনার মোট সম্পদ ৪০ লাখের বেশি হয় অবশ্যই এখানে Yes দিবেন এবং খাত অনুসারে ব্যায় দেখাবেন। মোট সম্পদ ৪০ লাখ না থাকলেও এটি দেখাতে পারেন।

সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন ফরম পূরণ

ধাপ ৪: সঞ্চয়পত্রের আয়ের তথ্য দিন

ধাপ ২ এ আপনি যে যে উৎস থেকে আয় সিলেক্ট করেছেন এখানে তার তথ্য দিতে হবে। সঞ্চয়পত্রের সুদের আয়ের জন্য আমরা Interest on Secuities সিলেক্ট করেছিলাম। এখন সঞ্চয়পত্রের তথ্য কিভাবে দিবেন ছবিতে দেখানো হলো।

সঞ্চয়পত্র আয়কর রিটার্ন

Interest on Securities Type অপশন থেকে Sanchaypatra (Other than Pensioners) সিলেক্ট করুন। যদি আপনার পেনশনার সঞ্চয়পত্র হয়ে থাকে Sanchaypatra (Pensioners) সিলেক্ট করবেন।

এছাড়া আপনার অন্য কোন আয় থাকলে সেগুলোর তথ্য পূরণ করুন। এবং Save & continue করে পরের ধাপে যান।

ধাপ ৪: ব্যয়ের তথ্য দিন

এ ধাপে আপনাকে ব্যায়ের তথ্য দিতে হবে। আয় বছরে আপনি বিভিন্ন খাতে মোট কত টাকা ব্যয় করেছেন তার পরিমাণ দিতে হবে।

যদি আপনার মোট সম্পদ ৪০ লক্ষ টাকা হয় IT10BB Form সাবমিট করে ব্যয়ের খাত অনুসারে ব্যয় দেখানো বাধ্যতামূলক। তা না হলে, আয় বর্ষে বিভিন্ন ব্যয় হিসাব নিকাশ করে মোট পরিমাণ লিখলেও চলবে।

সঞ্চয়পত্র আয়কর রিটার্নে ব্যয় প্রদর্শন

এজন্য, Total Amount of Expense and Tax হিসেবে মোট ব্যয়ের পরিমাণ লিখে দিবেন।

বাধ্যতামূলক না হলেও IT10BB ফরমটি পূরণ করে দেখানো ভাল হবে কারণ অনেক সময় আয়কর অফিস এটি চাইতে পারে। অথবা এটি ছাড়া রিটার্ন জমা নিতে আপত্তি জানাতে পারে।

এজন্য, IT10BB is not mandatory for you. Still want to submit? অপশনে Yes দিন।

আয়কর রিটার্নে ব্যয় বিবরণী

ধাপ ৪: সম্পদ ও দায় বিবরণী পূরণ করুন

যদি আপনি নতুন করদাতা হয়ে থাকেন, সম্পদের ঘরে আপনার সকল সম্পদের তথ্য ও ধরণ অনুযায়ী লিখুন। সঞ্চয়পত্র কত টাকা, অন্য কোন ডিপিএস, নগদ ও ব্যাংক জমা, ফার্ণিচার ও ইলেক্ট্রনিকস, স্বর্ণালংকার সব তথ্য সঠিকভাবে পূরণ করুন। কোন তথ্য না লুকালেই ভাল। নিচের ছবিতে দেখুন।

সঞ্চয়পত্র আয়কর রিটার্ন

নতুন করদাতা

নতুন রিটার্ন দাখিল করার ক্ষেত্রে নিচের নিয়মে সম্পদ ও দায় বিবরণী প্রস্তুত করবেন।

নীট সম্পদের পরিমাণ (মোট সম্পদ – দায় ও ঋণ)XXX
(+) আয়বর্ষে আপনার মোট ব্যয় (জীবনযাপন, লোকসান, দান ও অন্যান্য সকল)XXX
(-) আয়বর্ষে আপনার মোট আয় (করযোগ্য ও কর অব্যাহতিপ্রাপ্ত সকল আয়)XXX
(=) গত আয়বর্ষের শেষে সঞ্চিত অর্থ (অন্যান্য প্রাপ্তিতে দেখাবেন)XXX

পুরাতন করদাতা

যদি আপনি গত বছর রিটার্ন দাখিল করে থাকেন। সেক্ষেত্রে গত বছরে প্রদর্শিত নিট সম্পদ (Net Wealth) নতুন রিটার্ন দাখিল করার ক্ষেত্রে নিচের নিয়মে সম্পদ ও দায় বিবরণী প্রস্তুত করবেন।

আপনার উল্লেখ করা সকল সম্পদের পরিমাণ

গত আয়বর্ষের নীট সম্পদ (যা পূর্বের রিটার্নে নিট সম্পদ হিসেবে দেখানো হয়েছিল)XXX
(+) আয়বর্ষে আপনার মোট আয় (করযোগ্য ও কর অব্যাহতিপ্রাপ্ত সকল আয়)XXX
(-) নীট সম্পদের পরিমাণ (মোট সম্পদ – দায় ও ঋণ)XXX
(=) আপনার মোট ব্যয় (জীবনযাপন, লোকসান, দান ও অন্যান্য সকল)XXX

সম্পদ ও দায় বিবরণী সামারি

কিভাবে আয়কর রিটার্নে সম্পদ ও দায়ের বিবরণী মিল করবেন। তার ছক নিচে দেখানো হলো।

মোট সম্পদXXX
(-) দায় ও ঋণXXX
নীট সম্পদ (Net Wealth)XXX
(-) গত বছরের নীট সম্পদ (Net Wealth of Previous YearXXX
সম্পদ বৃদ্ধি/ হ্রাস (Change in Wealth)XXX
(+) ব্যয়, লোকসান ও দান (মোট ব্যয়) (Total Expense and Loss)XXX
মোট অর্থের বহিঃর্গমন (Total Outflow)XXX
(-) মোট আয় (Source of Fund)XXX
পার্থক্য অবশ্যই শুন্য হতে হবে0
সঞ্চয়পত্র আয়কর রিটার্ন সম্পদ ও দায়
আয়কর রিটার্নে সম্পদ ও দায় বিবরণী

উপরের ছবিতে সম্পদ ও দায় বিবরণীর সামারির দেখুন। Difference শুন্য হলে Save & Continue করে পরের ধাপে যান।

ধাপ ৫: Tax & Payment তথ্য

এ ধাপে আপনার মোট আয় (Total Income) এবং কর গণনা দেখানো হবে। এখানে Tax Computation অংশে কত টাকা কর পরিশোধ করতে হবে তা Total Amount Payable হিসেবে দেখানো হবে।

যেহেতু আপনার সঞ্চয়পত্রের ১০% হারে কর উৎসেই কর্তন করা হয়েছে, সঞ্চয়পত্রের উৎসে করের পরিমাণ Total Amount Payable থেকে বিয়োগ দিতে হবে।

এবছর অনলাইনে আয়কর রিটার্ন দাখিলের ক্ষেত্রে সঞ্চয়পত্রের উৎসে কেটে নেয়া কর Verify করা যাচ্ছে না। তাই অনলাইনে রিটার্ন জমা দেয়া সম্ভব নয়। আশা করা যায়, আগামী বছর তা চালু হয়ে যাবে।

তাই, আমাদের ম্যানুয়েলি উৎসে কর বিয়োগ দিয়ে ফরম পূরণ করে তা প্রিন্ট করে আয়কর অফিসে রিটার্ন জমা দিতে হবে। এজন্য যা করবেন নিচে দেখুন।

সঞ্চয়পত্র আয়কর রিটার্ন উৎসে কর কর্তন

Tax Computation চার্টের নিচে উপরের ছবির মত ২টি অপশন পাবেন।

Have you paid any source tax, advance tax, or any regular tax for 2022-2023 Assessment Year? অর্থাৎ আপনি কি কোন উৎসে কর বা অগ্রিম কর প্রদান করেছেন কিনা। এখানে Yes দিন।

এরপর আসবে Do you need to update your tax payment status? অর্থাৎ অগ্রিস কর প্রদান Status ভেরিফিকেশন/ আপডেট করতে চান কিনা। যেহেতু সঞ্চয়পত্রের কর অনলাইনে ভেরিফাই করা যাবে না, এটা No দিন।

ধাপ ৫: সঞ্চয়পত্রের আয়কর রিটার্ন ফরম প্রিন্ট করুন

উপরের সব কিছু ঠিক থাকলে এবার আপনাকে Offline Return বা Paper রিটার্ন জমা দেয়ার জন্য পূরণ করা ফরমটি PDF হিসেবে ডাউনলোড করতে হবে। এজন্য, Yellow collor এর Proceed to offline (paper) return বাটনে ক্লিক করুন।

সঞ্চয়পত্র আয়কর রিটার্ন ফরম প্রিন্ট
সঞ্চয়পত্র আয়কর রিটার্ন ফরম প্রিন্ট

এখানে Go to Offline Return অপশনে যান।

আয়কর রিটার্ন ফরমটি আসার পর, এখানে সঞ্চয়পত্রের উৎসে কর আপনাকে ম্যানুয়েলি বিয়োগ দিয়ে দেখাতে হবে।

ফরমের Part II থেকে নিচের ছবিতে দেখানো অংশটি পূরণ করে দিন

আয়কর রিটার্ন উৎসে কর কর্তন বিয়োগ

Serial 41 (Total Amount Payable) এ দেখানো হয়েছে মোট প্রদেয় কর 2760 টাকা। যেহেতু সঞ্চয়পত্রের এই কর উৎসেই কর্তন করা হয়েছে, তা Serial 42 এ Tax deducted or collect at source লিখে দিন।

আপনার সকল অগ্রিম কর (Serial 42 থেকে 45 পর্যন্ত যোগ করে) Serial 46 (Total amount paid and adjusted) এ বসান।

এবার Serial 41 থেকে 46 বাদ দিয়ে 47 নং এ অবশিষ্ট প্রদেয় করের পরিমাণ বসাতে হবে। যেহেতু উপরোক্ত উদাহরণে করদাতার অন্য কোন কর নেই। তাই মোট প্রদেয় কর থেকে অগ্রিম কর বাদ দেয়ার পর করের পরিমাণ (০) শুন্য হয়েছে।

ফরমের শেষে ACKNOWLEDGEMENT RECEIPT OF RETURN OF INCOME পৃষ্ঠা থেকে Serial 46 এর প্রদত্ত করের পরিমাণ Amount paid and adjusted ঘরে লিখে দিন (ছবিতে দেখুন)।

আয়কর রিটার্ন পরিশোধিত কর

সব ঠিক থাকলে নিচে Print বাটনে ক্লিক করে ফরমটি PDF হিসেবে ডাউনলোড করুন। ফরমটি প্রিন্ট করে অন্যান্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সহ আয়কর অফিসে জমা দিন।

শেষকথা

এখানে শুধুমাত্র যাদের সঞ্চয়পত্রের আয় আছে তাদের জন্য দেখানো হয়েছে। যাদের সঞ্চয়পত্র ছাড়া অন্য কোন আয় নেই তারা উপরের দেখানো পদ্ধতিতে সঞ্চয়পত্রের রিটার্ন ফরম নিজেই পূরণ করতে পারেন।

সঞ্চয়পত্রের পাশাপাশি একজন ব্যক্তির অন্যান্য উৎস থেকেও আয় থাকতে পারে। সেক্ষেত্রে সকল আয়ের তথ্য দেখাতে হবে। ফলে দেখা যাবে, তার অন্য আয়ের উপর কর গণনা হতে পারে।

সেক্ষেত্রে মোট প্রদেয় কর যা আসবে তা থেকে সঞ্চয়পত্রের উৎসে কর বাদ দিয়ে অবশিষ্ঠ কর থাকলে তা পরিশোধ করতে হবে। অনলাইনে আয়কর পরিশোধ করে তার প্রমাণ আয়কর রিটার্নের সাথে জমা দিতে পারেন।

এজন্য সে বিষয়ে ভালভাবে বুঝে শুনে রিটার্ন ফরম পূরণ করবেন এবং রিটার্ন জমার আগে আয়কর নির্দেশিকা ২০২১-২০২২ পড়ে নিবেন।

আপনার কোন প্রশ্ন থাকলে অবশ্যই কমেন্ট করে জানান।

সরকারি বিভিন্ন নাগরিক সেবা, অনলাইন সেবা, আয়কর ও ভ্যাট বিষয়ক বিভিন্ন তথ্য ও পরামর্শের জন্য নিয়মিত ভিজিট করুন Eservicesbd.com

ক্যাটাগরিআয়কর
হোমপেইজে যানEservicesbd

সকল আপডেট তথ্যের জন্য Facebook Page

Similar Posts

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।